দেশ

করোনার প্রভাবে পরিবর্তন ভারতীয় রেলে, বদলে যাচ্ছে ট্রেনের কামরা

দূরপাল্লার ট্রেন গুলির বাতানুকূল কামরায় আসতে চলেছে নতুন ব্যবস্থা। করোনা সংক্রমণ এড়াতে ব্যবহার করা যাবে না সেন্ট্রালাইজড এসি মেশিন, এই পরামর্শ আগেই দিয়েছিলেন বিশেষজ্ঞরা। পরামর্শ মেনেই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে রেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। সেন্ট্রালাইজড এসি মেশিন গুলিতে হাওয়া একই জায়গায় ঘোরে। ফলে নিরাপদ দূরত্ব বজায় রাখলেও, সংক্রমণের সম্ভাবনা থেকে যায় যাত্রীদের। এই আশঙ্কা কাটাতে অপারেশন থিয়েটারের মত এয়ারকন্ডিশনিং ফিচার নিয়ে আসতে চলেছেন বলেই জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল।

সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, এই নতুন এয়ারকন্ডিশনিং ব্যবস্থা চালু হলে, এসি কোচের ভেতর ঘন্টায় ১৬-১৮ বার শুদ্ধ বাতাস পাম্প করা যাবে। সাধারণভাবে যে এসি ব্যবহার করা হয়, তাতে মাত্র ৬-৮ বার শুদ্ধ বাতাস ভেতরে ঢোকানো হয়। ফলে ভেতরের বাতাসই “রিসার্কুলেটেট” হয়। এতে যদি কোচের ভেতর কোন সংক্রমিত ব্যক্তি থাকেন, তবে তার থেকে খুব সহজেই আক্রান্ত হবেন বাকি যাত্রীরা।

তবে রিসার্কুলেটেড বাতাসে ঠান্ডা ভাব বেশি থাকে। টাটকা বাতাস ব্যবহার করতে গেলে খুব বেশি সময় পর ঠান্ডা হবে কামরার আবহাওয়া। সে ক্ষেত্রে বেশি ইলেকট্রিক চার্জ খরচ হবে। কিন্তু সংক্রমণ এড়াতে, টাটকা বাতাসই ব্যবহার করতে হবে। তাই সে ক্ষেত্রে এসির তাপমাত্রা ২৩ ডিগ্রীর বদলে ২৫ ডিগ্রী করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close